সব
facebook netrokonajournal.com
শিক্ষকদের কাছ থেকে মার্জিত আচরণ কাম্য  | নেত্রকোণা জার্নাল

শিক্ষকদের কাছ থেকে মার্জিত আচরণ কাম্য 

প্রকাশের সময়:

শিক্ষকদের কাছ থেকে মার্জিত আচরণ কাম্য 

মোঃ রাসেল হাসান:
শিক্ষকদের পৃথিবীর শ্রেষ্ঠ মানুষ বলা হয়। শিক্ষকরাই পিতা-মাতার পরে একটি শিশুর বিকাশে গুরু ভূমিকা পালন করে। শিশুকে স্বপ্ন দেখতে শেখায়, মানুষ হতে শেখায়। যুগে যুগে মহান শিক্ষকরা নিজেদের মতো মহান বানিয়েছেন তাঁদের শিক্ষার্থীদের। সে আলোয় প্রজন্ম থেকে প্রজন্মান্তর আলোকিত হয়েছে।

একজন সক্রেটিস জন্মেছিলেন বলেই একজন প্লেটো জন্মেছিলেন, একজন প্লেটো জন্মেছিলেন বলেই একজন এরিস্টটল জন্মেছিলেন, একজন এরিস্টটল জন্মেছিলেন বলেই একজন আলেকজান্ডার জন্মেছিলেন। সক্রেটিসের আরেক শিষ্য ক্লিসথেনিস জন্মেছিলেন বলেই একজন ডায়োজেনিস জন্মেছিলেন, একজন ডায়োজেনিস জন্মেছিলেন বলেই হয়তো একজন জেনো জন্মেছিলেন। এভাবে মহান শিক্ষকরা তাঁদের আলোয় আলোকিত করে তুলেছিলেন তাঁদের শিক্ষার্থীদের, করে তুলেছিলেন তাঁদের মত উদার, মহৎ, মহান বা মহামানব। তাঁদের কেউ বিজ্ঞানী, কেউ দার্শনিক কেউ বা কবি। বিশ্বসাহিত্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা অধ্যাপক আব্দুল্লাহ আবু সায়ীদ স্যার বলেছেন, ”পৃথিবীর বড় মানুষরাই জাতির শিক্ষক।” আর সেই বড় মানুষদের বড় হওয়ার পেছনে সবচেয়ে বেশি অবদান তাঁদের শিক্ষকদের।

একজন সক্রেটিস পৃথিবীতে না এলেও একজন প্লেটো হয়তো পৃথিবীতে আসতেন কিন্তু আজকের প্লেটো হতেন না। অনুরূপ সবাই। শুধু যে বিশ্ববিখ্যাত কবি-সাহিত্যিক, দার্শনিক, বিজ্ঞানীরাই তাঁদের শিক্ষার্থীদের তাঁদের মতো অথবা সমসাময়িক করে তুলেছেন তা নয়। পৃথিবীর আনাচে-কানাচেও অনেক শিক্ষক ভক্তদের আলোকিত করে তুলেছিলেন। তাঁদের সংস্পর্শে গিয়েই শিষ্যরা মহান হয়ে উঠেননি। বরং মহামানবরা আদেশ-উপদেশ, পরামর্শ, বিতর্ক, পর্যবেক্ষণ বা হাতেকলমে বিভিন্ন শিক্ষা প্রদান করে তাঁদের খাটি সোনা করে তুলেছেন। উপনীত হওয়া যায় যে, শিক্ষার্থীরা শিক্ষাগুরুর কথা-বার্তা বা চলনে-বলনে ব্যাপক প্রভাবিত হন। অথচ আজকাল বিভিন্ন মাধ্যমিক স্কুলের সহকারী প্রধান শিক্ষক বা অন্যান্যদের মুখ থেকে শিক্ষার্থীদের ‘কুত্তার বাচ্চা’র মতো গালি দিতে শুনা যাচ্ছে! অনেক সময় ইঙ্গিতে অশ্লীল কথা পর্যন্তও জাহির করতে দ্বিধাবোধ করছেন না তাঁরা।

এতে কৈশর মনে যে নেতিবাচক প্রভাব পড়ছে উক্ত শিক্ষক ছাড়াও জাতির জন্যই তা মন্দ ডেকে আনবে। কারণ মাধ্যমিকে পড়ুয়ারা অনেকটা কাদা মাটির মতো। যার ফলে শিক্ষার্থীরা যা দেখবে, যা শুনবে, যা ভাববে তথা যেভাবে প্রভাবিত করা হবে খুব সহজেই তাদের সেরকমই বিকাশ গড়ে উঠবে, নিজেদের অজান্তেই একসময় অনুধাবন করতে পেরে শিক্ষার্থীরা নেতিবাচক প্রভাব আলাদা করতে চাইলেও ছাড়ানো জটিল হয়ে উঠবে ।

শিক্ষকের কাছ থেকে অনুপম কথা, সুন্দর পরামর্শ আর নিরুপম স্বপ্ন দেখা না শিখতে পেরে আর বিপরীতে দারুণ অবজ্ঞা, তুচ্ছ-তাচ্ছিল্য ও অনৈতিক গালমন্দের শিকার হয়ে সঙ্গত কারণেই তাদের পরিপূর্ণ বিকাশ হবেনা। ফলে পরবর্তীকালে মানসিক পুষ্টিহীন এই প্রজন্ম শিক্ষদের তো সম্মান দিবেই না বরং দেশেরও বিভিন্ন বিপদ ডেকে আনবে।

সম্প্রতি কিছু প্রতিষ্টানে কতিপয় শিক্ষক এমন ব্যবহারটা আরেকটা বিষয়কে কেন্দ্র করেও করছেন। তা হলো, ছাত্ররা ক্লাসে মোবাইল নিয়ে আসছেন। কেউ ক্লাসে ফোন চাপাচাপি করে আবার কেউ করে না। এতে শিক্ষকরা শাসনের নামে অনৈতিক গালমন্দ করছেন। শিক্ষকরা শিক্ষার্থীদের শাসন করবে এর চেয়ে সুন্দর দৃশ্য পৃথিবীতে খুব কমই আছে। কিন্তু শাসনের নামে শিক্ষার্থীদের মাঝে অনৈতিক শিক্ষা ও নেতিবাচক প্রভাব বিস্তার করানো শিক্ষকদের কাছ থেকে কখনো কাম্য হতে পারেনা। দেখা যাচ্ছে ক্লাসে শিক্ষকরাও ফোন নিয়ে প্রবেশ করছেন। এমনকি কল আসলেও রিসিভ করছেন। অথচ ২০১৭ সালের ১৫ই অক্টোবর বিকালে মাউশি থেকে আদেশ দেওয়া হয় যে, শ্রেণীকক্ষে শিক্ষক ও শিক্ষার্থী উভয়ই মোবাইল নিয়ে প্রবেশ করতে পারবে না। ১২ই অক্টোবর এ আদেশে মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের পরিচালক ড. এস এম ওয়াহিদুজ্জামান এ আদেশে সাক্ষর করেছিলেন। সুতরাং শিক্ষকরাই এ আদেশ না মানলে শিক্ষার্থীরা অদৌ মানবে কি?

বাংলাদেশকে সোনার বাংলাদেশ হিসেবে গড়তে হলে শুধু উচ্চ শিক্ষার ব্যবস্থা করলে হবে না। শিক্ষার উপযুক্ত পরিবেশ সৃষ্টি করতে হবে, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে উপযুক্ত শিক্ষক নিয়োগ দিতে হবে। তবেই মিলবে প্রকৃত শিক্ষার চারু আনন্দ। অন্যতায় কারুকার্যমন্ডিত সুচারু বিল্ডিং, বেঞ্চ, টেবিল তথা কথিত উচ্চ শিক্ষার বাহ্যিক আরো মনোহর ব্যবস্থাও বৃথা হবে।

 

লেখক- মোঃ রাসেল হাসান, (কবি ও নব্য চলচ্চিত্র অভিনেতা) ইমেইল: mdraselh043@gmail.com

আপনার মতামত লিখুন :

 ফেসবুক পেজ

 আজকের নামাজের ওয়াক্ত শুরু

    নেত্রকোণা, ময়মনসিংহ, ঢাকা, বাংলাদেশ
    সোমবার, ২৮ নভেম্বর, ২০২২
    ৪ Jumada I, ১৪৪৪
    ওয়াক্তসময়
    সুবহে সাদিকভোর ৫:০২ পূর্বাহ্ণ
    সূর্যোদয়ভোর ৬:২২ পূর্বাহ্ণ
    যোহরদুপুর ১১:৪৬ পূর্বাহ্ণ
    আছরবিকাল ২:৫০ অপরাহ্ণ
    মাগরিবসন্ধ্যা ৫:১১ অপরাহ্ণ
    এশা রাত ৬:৩০ অপরাহ্ণ
এর আরও খবর
নিবন্ধ: টুঙ্গী পাড়ার খোকা বিশ্ববন্ধু শেখ মুজিব: মকবুল তালুকদার

নিবন্ধ: টুঙ্গী পাড়ার খোকা বিশ্ববন্ধু শেখ মুজিব: মকবুল তালুকদার

আমি কেন সাংবাদিক হলাম -দিলওয়ার খান

আমি কেন সাংবাদিক হলাম -দিলওয়ার খান

আমার সাংবাদিকতা জীবনের শুরুর দিনগুলো: -মাসুদ করিম

আমার সাংবাদিকতা জীবনের শুরুর দিনগুলো: -মাসুদ করিম

গণমানুষের অধিকার নিয়ে কথা বলে গণমাধ্যম: দিলওয়ার খান

গণমানুষের অধিকার নিয়ে কথা বলে গণমাধ্যম: দিলওয়ার খান

ঈদে আমি বিটিভিই দেখি : ফয়সাল চৌধুরী

ঈদে আমি বিটিভিই দেখি : ফয়সাল চৌধুরী

ইতিহাসের পথ পরিক্রমায় আমাদের মুক্তিযুদ্ধ: বীর মুক্তিযোদ্ধা হায়দার জাহান চৌধুরী

ইতিহাসের পথ পরিক্রমায় আমাদের মুক্তিযুদ্ধ: বীর মুক্তিযোদ্ধা হায়দার জাহান চৌধুরী

সর্বশেষ সংবাদ সর্বাধিক পঠিত
 
উপদেষ্টা সম্পাদক : দিলওয়ার খান
সম্পাদক ও প্রকাশক : মুহা. জহিরুল ইসলাম অসীম  
অস্থায়ী কার্যালয় : এআরএফবি ভবন, ময়মনসিংহ রোড, সাকুয়া বাজার, নেত্রকোণা সদর, ২৪০০ ।
ফোনঃ ০১৭৩৫ ০৭ ৪৬ ০৪, বিজ্ঞাপনঃ ০১৬৪৫ ৮৮ ৪০ ৫০
ই-মেইল : netrokonajournal@gmail.com
© ২০২০ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত।